কুষ্টিয়া মিলপাড়ায় পৌর নির্বাচনী এলাকায় টাকা ও অস্ত্রের মহড়ার অভিযোগ

অনু প্রবেশকারী নব্য আওয়ামীলীগ নেতা ফজলে করিম খোকা

ভয়েস অফ কুষ্টিয়া ।। কুষ্টিয়া মিলপাড়ায় পৌর নির্বাচনী এলাকায় টাকা ও অস্ত্রের মহড়া দিয়ে সাধারণ ভোটারদের ভয়ভীতি দেখিয়ে ভোট নেওয়ার চেষ্টার করা হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে ঐ এলাকার অনুপ্রবেশকারী ও নব্য আওয়ামীলীগ নেতা ফজলে করিম খোকার বিরুদ্ধে।

জানা যায় খোকা ১০ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর প্রার্থী গোলাম মোস্তফা লাবলু ও সংরক্ষিত মহিলা (১০, ১১ ও ১২) ওয়ার্ডের প্রার্থী বিউটির পক্ষে ভোট নেওয়ার জন্য এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী হামিদুল-রাশেদুল বাহিনীর সেকেন্ড ইন কমান্ড যার কাছে এখনও ঐ বাহিনীর অস্ত্র গচ্ছিত আছে বলে এলাকাবাসীর বিশ্বাস সেই রঞ্জু, অস্ত্র মামলায় জেল খাটা দিন ইসলাম, আলম, রেল চুরি মামলায় সাজা খাটা মামুন সহ সন্ত্রাসীদের ব্যবহার করে এলাকায় ত্রাস সৃষ্টির চেষ্টা করছে। এলাকাবাসী ও নিরীহ প্রার্থীদের অভিযোগ নব্য আওয়ামীলীগ নেতা খোকা সন্ত্রাসীদের সাথে নিয়ে রাতের আধারে চর এলাকায় ঘরে ঘরে ঢুকে টাকা ও অস্ত্রের প্রভাব খাটাচ্ছে। ভোট না দিলে তাদের ভোটের পর দেখে নেওয়ারও হুমকি দেওয়া হচ্ছে বলে জানা যায়।

কুষ্টিয়া পৌর এলাকার সকল ওয়ার্ডে শান্তিপূর্ণ অবস্থা বিরাজ করলেও এই এলাকার মানুষের মধ্যে অত্যন্ত ভীতি ও উত্তেজনা বিরাজ করছে বলে জানা যায়।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, হঠাৎ আঙ্গুল ফুলে কলাগাছ বনে গেছেন।মাত্র কয়েক বছরের মধ্যে শত কোটি টাকার মালিক বনে যাওয়া খোকা এক সময় এই ওয়ার্ড বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক ছিলেন। তার ছেলে মাসুদ পারভেজ রাসেল বর্তমানে শহর বিএনপির নেতা।

কুষ্টিয়া পৌর নির্বাচনী এলাকা ১০, ১১ ও ১২ নম্বর ওয়ার্ডের চরমিলপাড়া থেকে চর আমলা পাড়ায় সাধারন ভোটারদের নিরাপত্তা এবং ১৬ জানুয়ারির নির্বাচন অবাধ সুষ্ঠ ও নিরপেক্ষ করতে তদন্ত সাপেক্ষে জরুরী ভিত্তিতে ব্যবস্থা নিতে সুযোগ্য পুলিশ সুপারের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছে সচেতন মহল।

আলোচিত খবর

error: কপি করা যাবে না -ধন্যবাদ